অনলাইন থেকে টাকা আয়ের সবচেয়ে বিশ্বস্থ উপায়। দেখুন এবং আপনিও অনলাইন থেকে ইনকাম শুরু করে দিন ২০২২

হ্যালো বন্ধুরা আসসালামু আলাইকুম কেমন আছেন সবাই আশা করি সকলে ভালোই আছেন আমাদের ওয়েবসাইটে আরও একটি নতুন পোষ্ট নিয়ে আপনাদের সামনে হাজির হলাম আমাদের আজকের বিষয়টি হয়তো আপনি শুধুমাত্র পোস্টের টাইটেল দেখে বুঝে গিয়েছেন আমরা আছে কি বিষয় নিয়ে আলোচনা করতে যাচ্ছি।

যদি আপনি ‌ অনলাইন থেকে ইনকাম করার জন্য আগ্রহী হয়ে থাকেন তাহলে এই পোষ্ট টি আপনার জন্য এখানে আমরা সাধারণ যে কাজগুলো রয়েছে অনলাইনে বা যে কাজগুলো করে আপনি কিন্তু খুব সহজে অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারবেন।

যদি ঘরে বসে ইনকাম করা যায় তাহলে এখানে ক্ষতি কি আপনি যদি খুব ভালো ভাবে জানি কাজ করতে পারেন তাহলে কিন্তু আপনার টাকার অভাব হবে না এবং সারাজীবন কিন্তু আপনি অনলাইনে কাজ করতে পারবে এখানে যত দিন যাচ্ছে তত উন্নত মানের কাজ পাওয়া যাচ্ছে।

অনলাইন থেকে টাকা আয়ের সবচেয়ে বিশ্বস্থ উপায়।
আগের থেকে বর্তমান সময়ে কিন্তু অনলাইন কাজের চাহিদা খুবই বেড়েছে এবং আপনি দেখবেন প্রতিটি শহরে একটি করে হলেও ফ্রিল্যান্সিং কাজে কোর্স তৈরি করা হচ্ছে এবং সেখানে কিন্তু মানুষকে ফ্রিল্যান্সিং শিখানো হচ্ছে কিভাবে অনলাইনে কাজ করা যায়।

অনেকের ক্ষেত্রে হয়তো টাকা দিয়ে অনলাইনে কাজ করা সম্ভব হয় না কেননা প্রথমত হয়তোবা আপনার মনে হতে পারে অনলাইন থেকে ইনকাম করা অসম্ভব’ এজন্য আপনি টাকা দিয়ে কোন প্রকার কোর্স কিনে কাজ করতে চাচ্ছেন না।

আপনি চাইলে অবশ্যই চেষ্টা করে দেখতে পারেন এবং আমি আজকে যে বিষয়গুলো নিয়ে আপনাদের সাথে আলোচনা করব এখানে সমস্ত কাজ কিন্তু আপনি চাইলে মোবাইল ফোন দিও করতে পারবেন তবে কিছু কিছু কাজ মোবাইল ফোন দিয়ে করার জন্য কিছুটা পরিশ্রম বেশী হবে।

তাহলে চলুন আমাদের আজকের পোস্ট শুরু করা যাক তার আগে দেখে নিন আমার আজকের পোস্টে একটি বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হবে এবং কিভাবে আপনি অনলাইন থেকে সহজেই ইনকাম করতে পারবেন।

কি ভাবে টাকা ইনকাম করব

অনেকের হয়তো প্রশ্ন থাকতে পারে যে কি ভাবে টাকা ইনকাম করবএই বিষয়টি নিয়ে তাহলে আপনি সঠিক জায়গায় এসেছেন আশা করি আপনি এখান থেকে খুব ভালো উত্তর পেয়ে যাবেন কিভাবে অনলাইন থেকে ইনকাম করতে হয় এই বিষয়ে সম্পর্কে।

আমাদের ওয়েবসাইটে অন্য একটি পোস্ট হয়েছে সেখানে আমরা আলোচনা করেছি অনলাইন কাজের জন্য কি কি প্রয়োজন হবে এবং কিভাবে অনলাইন কাজ করব এই বিষয় সর্ম্পকে আজকে যে আমরা আলোচনা করব এখানে হচ্ছে আমরা সাধারন কিছু সেক্টর যেখান থেকে কাজ করে আপনি ইনকাম করতে পারবেন।

এই সবকিছু সেক্টর বা জায়গা থেকে সহজে ইনকাম করা যায় তা নিয়ে আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করব অবশ্যই পুরো আর্টিকেলটি করবেন তাহলে আশাকরি আপনি কোন না কোন ভাবে অনলাইনে কাজ করার জন্য আগ্রহী হবেন।

মোবাইল ফোন দিয়ে আপনি কিন্তু খুব সহজে অনলাইনে কাজ করতে পারবেন বর্তমান সময়ে যারা অনলাইনে কাজ করতেছে তারাও কিন্তু একসময় মোবাইল ফোন দিয়ে অনলাইনে কাজ করতো।

কিন্তু তারা বর্তমান সময়ে মোবাইল ফোন দিয়ে কাজ করে এখন ল্যাপটপসহ কম্পিউটার আরও বিভিন্ন ধরনের ইলেকট্রনিক যন্ত্র কিনে নিয়েছে যাতে আরও সহজ ভাবে কাজ করা যায় অনলাইনে।

যারা একদম নতুন তারা চাইলে কিন্তু মোবাইল ফোন দিয়ে কাজ শুরু করতে পারেন কেননা প্রথমত অবস্থা আমাদের হয়তো মাথায় আসতে পারে যে অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারব কিনা এই বিষয়টির জন্য প্রথমে আপনার মোবাইল ফোন দিয়ে কাজ করতে পারেন।

পরে যখন আপনার বিশ্বাস আসবে যে অনলাইন থেকে সত্যিই ইনকাম করা যায় তখন চাইলে কিন্তু আপনি মোবাইল ফোন দিয়ে কিছু টাকা ইনকাম করে পরবর্তী সময় ল্যাপটপ বা কম্পিউটার ক্রয় করতে পারেন।

কিভাবে অনলাইন থেকে ইনকাম করবো এই প্রশ্নটিই যদি আপনি গুগলে করেন তাহলে কিন্তু হাজারো ওয়েবসাইট পেয়ে যাবেন যেখানে বিভিন্ন ধরনের উপায় লেখা রয়েছে যদি আপনি একদম সহজে ইনকাম করতে চান তাহলে কিন্তু আপনাকে অবশ্যই কিছুটা পরিশ্রম করতে হবে।

এবং এর পরবর্তী কিন্তু আপনি ইনকাম করতে সক্ষম হবেন শুধুমাত্র অন্যের ওয়েবসাইটের আর্টিকেল লেখা পোস্টগুলো দেখে আগ্রহী হয়ে উঠলে হবে না অবশ্যই আপনাকে কাজের প্রতি চেষ্টা থাকতে হবে যেন আপনি সেই কাজ থেকে খুব সহজে সফল হতে পারেন।

মোবাইল ফোন দিয়ে অনলাইনে যে কাজগুলো করা যায় এই কাজগুলো করে কিন্তু আপনি খুব দ্রুত টাকা ইনকাম করতে পারবেন যদিও ইনকামের পরিমাণ টা খুব কম তারপরও কিন্তু খুব দ্রুত আপনি টাকা ইনকাম করতে পারবেন মোবাইল ফোন দিয়ে।

অনেকগুলো মাধ্যম রয়েছে মোবাইল ফোন দিয়ে কাজ করার জন্য কেননা এখন একটি মোবাইল ফোন কিন্তু সাধারণভাবে সকল কিছু ব্যবহার করা যায় এবং সকল কাজ করা যায় একটি মোবাইল ফোন দিয়ে আগের থেকে অনেক উন্নত।

কিভাবে অনলাইনে ইনকাম করা যায়

অনলাইন থেকে ইনকাম করার জন্য হাজারো উপায় রয়েছে যদি আপনি চেষ্টা করেন তাহলে কিন্তু অনেক উপায় পেয়ে যাবেন অনলাইনে কাজ করার জন্য এবং সে উপায়গুলো খাটিয়া কিন্তু আপনি অনলাইন থেকে খুব সহজে ইনকাম করতে পারবেন।

কিভাবে অনলাইনে ইনকাম করা যায় এটি হয়তো অনেকেই জানতে চান এবং অনলাইন থেকে ইনকাম করতে সাধারণত মোবাইল ফোন তাহলে কিন্তু আপনি অনলাইন থেকে সহজে ইনকাম করতে পারবেন।

আপনি কিন্তু একদিনে অনলাইন থেকে অনেক টাকা ইনকাম করতে পারবেন না এর জন্য আপনাকে অবশ্যই ধৈর্য রাখতে হবে কেননা একজন লোক যে কোন কাজের জন্য আগে ট্রেনিং দিয়ে তারপর কিন্তু পরবর্তী সময়ে সেই কাজটি করার চেষ্টা করে।

আপনি যেহেতু নতুন এ ক্ষেত্রে কিছুটা সময় লাগতে পারে আপনার অনলাইনে ইনকাম করার জন্য অবশ্যই আপনাকে অনলাইনে কাজ করার জন্য সবসময় অনলাইনে থাকতে হবে এবং যথাযথ চেষ্টা করতে হবে অনলাইনে কাজ শিখার জন্য।

সাধারণত আপনি চাইলে কিন্তু ছোট ছোট কাজ করে অনলাইনে ইনকাম শুরু করতে পারেন যে ছোট কাজগুলো করার মধ্যে একসময় কিন্তু খুব বড় কাজের অফার পেয়ে যাবেন অর্থাৎ আপনাকে ছোট কাজ দিয়ে শুরু করতে হবে অনলাইন জগত।

আপনি চাইলে কিন্তু আর্টিকেল রাইটিং করে অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারবেন এর জন্য অবশ্যই আপনার বিভিন্ন বিষয়ের উপর ধারণা থাকতে হবে কিভাবে আপনি আর্টিকেল লিখে অনলাইন থেকে ইনকাম করবেন এ বিষয়ে সম্পর্কে এখন আপনাদের সাথে আলোচনা করা হবে।

আর্টিকেল লিখে অনলাইন থেকে ইনকাম করার উপায়

বর্তমান সময়ের সবচেয়ে সহজ উপায় হচ্ছে কিন্তু আর্টিকেল লিখে অনলাইন থেকে ইনকাম করা এটি কিন্তু আপনি মোবাইল ফোন দিয়ে প্রফেশনাল ভাবে করতে পারবেন কোন প্রকার সমস্যা হবে না অবশ্যই আপনার টাইপিং স্পিড ভালো থাকলে হবে।

একটি আর্টিকেল এর মূল্য কিন্তু অনেক টাকা কেননা একটি আর্টিকেল মাধ্যমে অনেক কিছু বোঝানো যায় এবং অনেক বিষয় সম্পর্কে জানানো যায় মানুষকে।

আপনি চাইলে কিন্তু আর্টিকেল লিখে অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারবেন এর জন্য অনেক আর্টিকেল কিনে এরকম ক্রেতা আর অনলাইনে হাজার হয়েছে যাদের কাছে আর্টিকেল বিক্রি করে ইনকাম করতে পারবেন খুব সহজে।

আপনাকে আর্টিকেল তৈরি করার আগে যে বিষয় সম্পর্কে জানতে হবে যেগুলো আপনাদের সাথে আমি শেয়ার করব কেননা শুধুমাত্র আর্টিকেল লিখলে কিন্তু সেই আর্টিকেলগুলো মানুষ টাকা দিয়ে কিনে নেবে না।

অবশ্যই আপনাকে বিভিন্ন বিষয়ের উপর রিচার্জ করে তারপর একটি আর্টিকেল তৈরি করতে হবে তা না হলে কিন্তু সেই আর্টিকেলটি মানুষের কাছে মানসম্মত হবে না এবং আর্টিকেলটির কোন প্রকার দাম থাকবে না।

অবশ্যই আপনাকে আগে জানতে হবে কিভাবে একটি আর্টিকেল তৈরি করা যায় এই বিষয় সম্পর্কে আপনাকে আগে অবশ্যই জেনে নিতে হবে তা না হলে কিন্তু আপনি সুন্দরভাবে কোন আর্টিকেল তৈরি করতে পারবে না কোনভাবে।

কিভাবে একটি আর্টিকেল তৈরি করতে হয় এটি আগে জেনে নিন এরপর চেষ্টা করুন একটি আর্টিকেল তৈরি করা যদি আপনার কাছে মনে হয় আপনার আর্টিকেলটি খুব সুন্দর হয়েছে তার পরবর্তী সময় কিন্তু আপনি সেটি বিক্রি করতে পারবেন।

সর্বপ্রথম আপনাকে যা করতে হবে একটি আর্টিকেল লেখার জন্য সেটি হচ্ছে।

আর্টিকেল লেখার জন্য কিওয়ার্ড রিসার্চ

যদি আপনি একটি সুন্দরভাবে আর্টিকেল তৈরি করতে চান অবশ্যই আপনাকে আর্টিকেল তৈরি করার আগে একটি বিষয় সম্পর্কে খেয়াল রাখতে হবে সেটি হচ্ছে আপনি কি বিষয় নিয়ে আর্টিকেলটি তৈরি করতে চাচ্ছেন।

অবশ্যই আপনাকে আর্টিকেল তৈরি করার আগেই এ বিষয়ে সম্পর্কে খুব ভালোভাবে জানতে হবে কেননা যখন আপনি একটি আর্টিকেল লিখবেন সেসময় কিন্তু খুব ভালোভাবে রিচার্জ করার কোনো সুযোগ থাকে না সেজন্য আর্টিকেল তৈরি করার আগে আপনাকে আগে চিন্তা ভাবনা করে দেখতে হবে।

এখন অনেকে হয়তো বলতে পারেন কিভাবে একটি সুন্দর আর্টিকেল তৈরি করব আমি তো একদম নতুন অনলাইনে এসেছি এক্ষেত্রে আপনাকে যা যা করতে হবে প্রথমত আপনি যে বিষয়টি নিয়ে একটি আর্টিকেল তৈরি করতে চাচ্ছেন সেই বিষয় সম্পর্কে জানতে হবে ভালোভাবে।

আপনি যে বিষয় সম্পর্কে নিয়ে আর্টিকেলটি তৈরি করবেন সে বিষয়ে সম্পর্কে আশাকরি আপনার কিছুটা হলেও ধারণা রয়েছে আপনার কিন্তু কিছুটা ধারনা থাকলে হবে না অবশ্যই পুরো ভাবে সেই বিষয়ে সম্পর্কে ধারণা থাকতে হবে।

প্রথমত আপনি ভাবুন যে আপনি কোন বিষয় সম্পর্কে কিছুটা হলেও ভালো জানো সে বিষয়টি খুঁজে বের করুন আগে সর্বপ্রথম আপনাকে খুঁজে বের করতে হবে আপনি কোন বিষয় সম্পর্কে ভাল জানেন এবং ভাল বোঝেন।

এর পরবর্তী সময় আপনাকে কিওয়ার্ড রিসার্চ করতে হবে সেটি কীভাবে করবেন আমি বলে দিচ্ছি আপনি যে কী-ওয়ার্ডটি নিয়ে একটি আর্টিকেল তৈরি করবেন সেই কী-ওয়ার্ডটি খুব ভালোভাবে কিন্তু আপনাকে আর্টিকেলের ভিতরে ফুটিয়ে তুলতে হবে।

ধরুন আপনি একটি অনলাইন থেকে ইনকাম করা যায় কিভাবে এই বিষয় সম্পর্কে আপনি একটি পোস্ট তৈরী করলেন তো এখানে মেইন বিষয়টি হচ্ছে কিভাবে অনলাইন থেকে ইনকাম করা যায়।

আপনাকে অবশ্যই খুব ভালোভাবে সেই আর্টিকেলের ভিতরে বুঝাতে হবে যে কিভাবে অনলাইন থেকে ইনকাম করা যায় প্রতি 100 ওয়ার্ল্ডে ব্যবহার করবেন আপনার মেইন কী-ওয়ার্ডটি ফোকাস করার জন্য আপনি কিন্তু আপনার আর্টিকেলটি খুব সুন্দরভাবে তৈরি হবে।

যদি আপনি একটি বিষয়ে সুন্দরভাবে গুছিয়ে লেখেন এক্ষেত্রে কিন্তু আপনার আর্টিকেলটি সর্বনিম্ন 1000 থেকে পনেরশো ওয়ার্ল্ডের হবে এবং আপনি যখন সুন্দর একটি আর্টিকেল লিখতে পারবেন তখন কিন্তু সে আর্টিকেলটি সহজে বিক্রি করতে পারবেন।

অবশ্যই আপনার আর্টিকেল দিয়ে ইউনিক হতে হবে তাহলে কিন্তু আপনার আর্টিকেলটি মানুষ ক্রয় করবে এবং অনেক সময় দেখা যায় যদি আপনি ভাল আর্টিকেল তাকে দিতে পারেন তাহলে সে পরবর্তী সময় কিন্তু আপনার থেকে আরও আর্টিকেল নিবে।

এর জন্য কোয়ালিটিফুল আর্টিকেল তৈরি করতে হবে তাহলে কিন্তু অন্যরা আপনার আর্টিকেল নিতে আগ্রহী হবে আর যদি আপনার আর্টিকেল সম্মত না হয় তাহলে কিন্তু শেয়ার পরবর্তী সময় আপনার থেকে আর্টিকেল ক্রয় করবে না।

এই আর্টিকেলগুলো বিক্রি করার জন্য অবশ্যই আপনি বিভিন্ন ধরনের সোশ্যাল মিডিয়ার সাথে যুক্ত থাকবেন বিশেষ করে ফেসবুকে যে ওয়েব সাইট সম্পর্কিত গ্রুপগুলো রয়েছে সেগুলোতে যুক্ত থাকবেন।

কেন না সেই গ্রুপগুলোতে কিন্তু বর্তমান সময়ে আর্টিকেল ক্রেতার খুবই আগ্রহ বেশি এবং ক্রেতারা কিন্তু প্রতিনিয়ত আর্টিকেল খুজতেছে কে আর্টিকেল বিক্রি করে আপনি যদি গ্রুপে পোস্ট করেন যে আমি আর্টিকেল বিক্রি করবো তাহলে দেখতে পারবেন অনেকে আর্টিকেল কিনার জন্য আপনার সাথে যোগাযোগ করবে।

ছাত্রদের জন্য অনলাইনে আয়

একজন ছাত্র তাইলে কিন্তু অনলাইনে সহজে ইনকাম করতে পারবে তার পড়াশোনার পাশাপাশি আপনি যদি একজন কলেজ পড়ুয়া ছাত্র হয়ে থাকেন তাহলে কিন্তু আপনিও পারবেন অনলাইন থেকে ইনকাম করতে।

কেননা একজন ইস্টুডেন্ট থেকেই কিন্তু একজন বড় শিক্ষক বা বড় অফিসার হওয়া যায় এরকমভাবে আপনি চাইলে কিন্তু পড়াশোনার পাশাপাশি সাধারণ ছোট ছোট কাজগুলো অনলাইনে করতে পারেন।

এবং আপনার যখন খুব ভালোভাবে অনলাইন কার সম্পর্কে ধারণা হয়ে যাবে তখন তাহলে কিন্তু আপনি প্রফেশনাল ভাবে অনলাইনে কাজ করতে পারেন যদিও বর্তমান সময়ে অনেক ছাত্র-ছাত্রী অনলাইনে কাজ কিছুটা পেশা হিসেবে নিয়েছে।

কেননা থেকে কিন্তু সর্বনিম্ন টাকা থেকে সর্বোচ্চ টাকা পর্যন্ত আপনি ইনকাম করতে পারবেন যদি আপনার ধৈর্য থাকে এবং আপনি যদি চেষ্টা করেন তাহলে অবশ্যই এখান থেকে আপনি ইনকাম করতে পারবেন।

আমাদের ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য সবসময় কিন্তু পড়াশোনা করতে হয় না অনেক সময় কিন্তু আমরা সাধারণভাবে বিভিন্ন জায়গায় ঘোরাফেরা করি বা খেলার মাঠে থাকি এবং যদি আপনি নষ্ট না করে অনলাইনে কাজ করেন তাহলে কিন্তু ভালো পরিমাণে ইনকাম করতে পারবেন।

প্রতিটি ছাত্র চায়না তার জীবন খুব সুন্দর হোক এবং তার পরিবার যেন সবসময় তাকে ভালভাবে সাপোর্ট দেয় অনেক সময় দেখা যায় আমাদের পরিবার থেকে খুব ভালোভাবে সাপোর্ট পাইনে পড়াশোনা করার জন্য বিশেষ করে যারা একদম নিম্নবিত্ত লোক তাদের ক্ষেত্রে এগুলো হয়ে থাকে।

যদি আপনার কোন প্রকার সমস্যা হয় তাহলে কিন্তু আপনি অনলাইনে কাজ করে আপনার নিজের যে পকেট খরচটা বা আপনার নিজের পড়ালেখার করুক তা কিন্তু আপনি চালিয়ে নিতে পারবেন অনলাইনে বিভিন্ন ধরনের কাজ করে।

তবে অবশ্যই আপনাকে তাড়াহুড়া করা যাবে না যদি আপনি তাড়াহুড়া করেন তাহলে কিন্তু কোন প্রকার কাজে আসবে না কেননা অনলাইনে কাজ করতে হবে খুব ধীরে সুস্থে এবং চিন্তাভাবনা করে তাহলে কিন্তু আপনি ইনকাম করতে পারবেন অনলাইন থেকে।

খুব সহজে কিন্তু আপনি লেখালেখির মাধ্যমে ইনকাম করতে পারবেন কেননা একজন ছাত্র সবচেয়ে বড় কথা হচ্ছে তার লেখালেখি যখন সে পরীক্ষার হলে তখন কিন্তু তাকে সবকিছু লিখে দিতে হয়।

এবং প্রতিটি পরীক্ষার হলে কিন্তু আপনাকে কলম দিয়ে দেখতে হয় কিন্তু আপনি চাইলে অনলাইনে শুধুমাত্র মোবাইল ফোনে টাইপিং করবো কিন্তু ইনকাম করতে পারবেন সেজন্য উপর আমি বলে দিলাম কিভাবে আপনি একটি আর্টিকেল তৈরি করবেন এবং কিভাবে আপনি বিক্রি করবেন।

ছাত্রদের জন্য লেখালিখি অনলাইনে আয়

ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য পড়াশোনার পাশাপাশি আপনি কিন্তু অনলাইনে লেখালেখি করে ইনকাম করতে পারবেন এর জন্য আপনাকে অবশ্যই বিভিন্ন বিষয় জানতে হবে এবং কিভাবে সুন্দর একটি কিওয়ার্ড রিচার্জ করে আর্টিকেল তৈরি করবেন সে সম্পর্কে উপরে বলে দিয়েছি দেখে নিতে পারেন।

আপনি যখন অবসর সময় পাবেন তখন কিন্তু চাইলে একটি আর্টিকেল লিখতে পারেন অর্থাৎ যারা হোস্টেলে থাকেন বা বাসায় থাকেন যখন আপনি অবসর সময় পান তখন কিন্তু চাইলে আপনি একটি আর্টিকেল লিখতে পারেন অনলাইনে ইনকাম করার জন্য।

একটি আর্টিকেল তৈরি করুন এবং পরবর্তী সময়ে সঠিক বিক্রি করতে পারেন অথবা এছাড়াও আরো কিছু উপায় রয়েছে যেগুলো অবলম্বন করো কিন্তু আপনি ইনকাম করতে পারবেন তবে এখানে কিছুটা সময় বেশি লাগতে পারে ইনকাম করার জন্য।

যদি চান তাহলে আপনি একটি ওয়েবসাইট তৈরি করে সেখান থেকে ইনকাম করতে পারেন আমি এই বিষয় সর্ম্পকে নিচে বিস্তারিতভাবে আপনাদের সাথে আলোচনা করব কিভাবে একটি ওয়েবসাইট তৈরি করতে হয় এবং কিভাবে আপনি একটু ওয়েবসাইট থেকে ইনকাম করতে পারবেন।

বর্তমানে বাংলাদেশের হাজার ছাত্রছাত্রীর রয়েছে যারা পড়াশোনার পাশাপাশি অনলাইনে আয় করতেছে আপনিও কিন্তু আয় করতে পারবেন অনলাইন থেকে খুব সহজে যদি আপনার আগ্রহ এবং চেষ্টা থাকে।

আমি নিজেও একজন ছাত্র এবং আমার পড়াশোনা কিন্তু খুব বেশি নয় ছোট থেকেই আমি অনলাইনে কাজ করার জন্য আগ্রহী হয়ে উঠে এবং গত দুই বছর ধরে আমি কিন্তু অনলাইনে ইনকাম করার জন্য চেষ্টা করতেছি।

আপনাকেও ঠিক এইভাবে চেষ্টা করতে হবে তাহলে কিন্তু আপনি আশা করি একদিন না একদিন অবশ্যই সফলতা অর্জন করতে পারবেন সকল কাজের জন্য আমাদেরকে অবশ্যই ধৈর্য ধরা প্রয়োজন।

বড় বড় মার্কেটপ্লেস রয়েছে যেখানে আপনি খুব সহজেই কিন্তু আপনার লেখা আর্টিকেলটিতে বিক্রি করতে পারবেন এবং আপনি যদি ইংলিশে একটি পোস্ট লিখতে পারেন তাহলে কিন্তু সেই পোষ্টের দাম মোটামুটি অনেক বেশি হবে।

বাংলা আর্টিকেল এর দাম খুব বেশি নয় তবে আপনি যদি একটি ইংরেজি আর্টিকেল লিখেন তাহলে কিন্তু অনেক টাকা ইনকাম করতে পারবেন। আপনাকে বিভিন্ন ধরনের বড় বড়দের সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটগুলো রয়েছে সেখানে যুক্ত হতে হবে।

যেমন ধরুন ফাইবার এখানে কিন্তু অনেক ধরনের কাজ রয়েছে তার মধ্যে অন্যতম একটি হচ্ছে আর্টিকেল তৈরি করা অর্থাৎ আর্টিকেল রাইটিং আপনি চাইলে সুন্দর আর্টিকেল তৈরি করে সেখানে কিন্তু বিক্রি করতে পারেন।

বসে আপনার আর্টিকেল দিয়ে সেখানে ইংরেজি বা অন্য ভাষায় কত হবে কেননা বাংলা ভাষা কিন্তু ফাইবারে খুব কম ব্যবহৃত হয়।

ঘরে বসে আয় করুন ১৫০০০-২০০০০ টাকা প্রতি মাসে

আপনি যদি ফ্রিল্যান্সিং হন একজন তাহলে কিন্তু প্রতি মাসে 15 থেকে 20 হাজার টাকা খুব সহজে ইনকাম করতে পারবেন অনলাইন থেকে এবং এর চেয়ে বেশি কিন্তু ইনকাম করা আপনার জন্য কোন কঠিন কাজ হবে না।

একজন দক্ষ ফ্রিল্যান্সার এর কিন্তু প্রতি মাসে ইনকাম 50 হাজার থেকে 1 লক্ষ টাকা ইনকাম প্রতি মাসে যদি আপনি একজন দক্ষ ফ্রিলান্সার হন তাহলে কিন্তু আপনিও পারবেন প্রতি মাসে এই পরিমাণ ইনকাম করতে খুব সহজে।

অবশ্যই আপনাকে বিভিন্ন কাজের উপর দক্ষ হতে হবে তাহলে কিন্তু আপনি ইনকাম করতে পারবেন বিভিন্ন ধরনের সেক্টর রয়েছে বা উপায় রয়েছে যেগুলোর মাধ্যমে আপনি কিন্তু খুব সহজেই অনলাইন থেকে ইনকাম করতে পারবেন।

ওয়েবসাইট ডিজাইন করে ইনকাম
খুব ভালো একটি মাধ্যম হচ্ছে ওয়েবসাইট ডিজাইন করে আপনি কিন্তু ইনকাম করতে পারবেন অর্থাৎ এর জন্য আপনাকে হতে হবে ওয়েব ডেভলপার তাহলে কিন্তু আপনি ওয়েবসাইট ডিজাইন করতে পারবেন।

বর্তমান সময়ে একজন ওয়েব ডেভলপার এর মূল্য কিন্তু অনেক এবং একজন ওয়েব ডেভলপার এর চাহিদা খুব বেশি পরিমাণে কেননা যতদিন যাচ্ছে তত সবকিছু নতুন নতুন আবিস্কার বাড়তেছে এবং মানুষের কাছে সেই আবিষ্কারগুলো কিন্তু ফুটে উঠেছে।

যদি আপনি নতুন কোন ডিজাইন তৈরি করতে পারেন তাহলে কিন্তু আপনার সেই ডিজাইন টি খুব ভালো দামে বিক্রি করতে পারবেন বিভিন্ন ধরনের মার্কেটপ্লেসে অবশ্যই আপনার নতুন কিছু শিখতে হবে তো সর্বপ্রথম আপনাকে দেখতে হবে ওয়েব ডেভলপার হওয়ার জন্য সেগুলো হচ্ছে।

কোডিং জানতে হবে আপনাকে ওয়েব ডেভলপার হওয়ার জন্য একজন ওয়েব ডেভলপার কিন্তু সকল ধরনের কোডিং জানে সেই জন্য কিন্তু সে ওয়েব ডেভলপার হতে পেরেছে যদি আপনি একজন দক্ষ ওয়েব ডেভলপার হতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে খুব ভালোভাবে কোডিং গুলো জানতে হবে।

এর জন্য বিভিন্ন ধরনের ওয়েবসাইট রয়েছে যেখানে চাইলে কিন্তু আপনি সাধারণভাবে শিখতে পারেন কিভাবে ওয়েবসাইট তৈরি করতে হয় বা কিভাবে কোডিং গুলো তৈরি করতে হয় এ বিষয়গুলো নিয়ে।

যদি আপনি ওয়েব ডেভলপার হন তাহলে অবশ্যই আপনাকে একজন দক্ষ ওয়েব ডেভলপার হতে হবে তাহলে কিন্তু আপনি ইনকাম করতে পারবেন অনলাইন থেকে বিভিন্ন ধরনের ওয়েবসাইট ডিজাইন করে যদিও বাংলাদেশে অনেক ডিজাইনার রয়েছে এবং তাদের কিন্তু খুব চাহিদা রয়েছে।

আপনাকে অবশ্যই একজন দক্ষ ওয়েব ডেভলপার হতে হবে তাহলে আপনি নিজে একটি সুন্দর ডিজাইন তৈরি করে সেটা কিন্তু বিভিন্ন ধরনের মার্কেটপ্লেসে বিক্রি করতে পারবেন এবং একটি ডিজাইন কিন্তু আপনি হাজারো মানুষের কাছে বিক্রি করতে পারবেন।

অবশ্যই সেই ডিজাইন টি আপনার নিজের হতে হবে যদি আপনি অন্য কোথাও থেকে কপি করেন তাহলে কিন্তু আপনার সেই ডিজাইন টি মানুষ টাকা দিয়ে কিনে নিবে না কেননা কপি জিনিস কিন্তু মানুষ কখনোই টাকা দিয়ে নিবেনা।

আপনি যদি একজন দক্ষ ওয়েব ডেভলপার হন তাহলে প্রতি মাসে 15 থেকে 20 হাজার টাকা ‌ সহজেই ইনকাম করতে পারবেন এবং এটা কিন্তু প্রতি মাসে আপনার সর্বনিম্ন ইনকাম থাকবে।

যদি আপনার কাজ গুলো খুব সুন্দর হয় এবং মানুষের কাছে ভালো লাগে তাহলে কিন্তু প্রতি মাসে লক্ষাধিক টাকা আপনি ইনকাম করতে পারবেন শুধু ওয়েবসাইট ডিজাইন করে বিভিন্ন ধরনের মার্কেটপ্লেস থেকে।

এছাড়াও আপনি ইউটিউবে ভিডিও দেখতে পারেন যে কিভাবে একটি ওয়েবসাইট ডিজাইন করা হয় এবং কোডিং গুলো কিভাবে করা হয় এ বিষয়গুলো ইউটিউবে কিন্তু অনেক বেশি পরিমাণে ভিডিও রয়েছে যেখান থেকে আপনি খুব সহজেই কিন্তু এই কাজগুলো শিখতে পারেন।

বাংলাদেশের নামকরা কিছু ট্রেনিং কোর্স রয়েছে যেমন বঙ্গ একাডেমি টেন মিনিট স্কুল আরও বিভিন্ন ধরনের কিন্তু অনলাইন কোর্স রয়েছে যেগুলো আপনি করে খুব সহজে অনলাইনে একটি সেক্টর বা একটি ভালো কাজ খুঁজে নিতে পারবেন।

তবে চাইলে আপনি সর্বপ্রথম ইউটিউব থেকে কাজ গুলো দেখে নিতে পারেন এক্ষেত্রে সবচেয়ে ভালো হবে এবং পরবর্তী সময় আপনার যদি মনে হয় আপনি একজন ওয়েব ডেভলপার হতে পারবেন তাহলে কিন্তু আপনি কোর্সগুলো কিনে সেগুলো করে খুব দ্রুত সম্পন্ন করতে পারবেন।

অ্যাপ তৈরি করে ইনকাম করুন ‌

আপনি চাইলে কিন্তু অ্যাপ তৈরি করে ইনকাম করতে পারবেন এবং একজন ওয়েব ডেভেলপার এর মত একজন অ্যাপ ডেভলপার ইনকামও কিন্তু প্রতি মাসে অনেক টাকা যদি আপনি লক্ষ্য করেন তাহলে ফেসবুকে বিভিন্ন ধরনের বড় বড় group দেখতে পারবেন যে গ্রুপ গুলোতে আ্যপ এ বিষয়ে আলোচনা করা হয়।

আপনিও কিন্তু পারবেন অ্যাপ তৈরি করে খুব সহজে ইনকাম করতে কেননা একজন অ্যাপ ডেভলপার কিন্তু অনেক ধরনের অ্যাপ তৈরি করতে পারে এবং প্লেস্টরে কিন্তু লক্ষ লক্ষ এক রয়েছে প্রতিটি অ্যাপ কিন্তু একনয় প্রতিটি অ্যাপ এর কাজ অন্যান্য।

অ্যাপ ডেভলপার হতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে খুব ভালোভাবে কোডিং শিখতে হবে যদিও আপনি যদি প্রফেশনাল ভাবে অ্যাপ ডেভলপার হতে চান এই ক্ষেত্রে কিন্তু আপনাকে কোর্স করতে হবে কেননা এটি কিন্তু আপনি ফ্রিতে খুব ভালোভাবে শিখতে পারবেন না।

অনলাইনে বিভিন্ন ধরনের কোর্স রয়েছে সেগুলো ক্রয় করে তারপর সম্পূর্ণ করলে অর্থাৎ যতগুলো কোর্স থাকবে একটি ফাইল এর ভিতর সব গুলো যদি আপনি সম্পন্ন করেন তাহলে আশা করা যায় আপনি এক তৈরি করতে পারবেন।

যদি আপনি চান তাহলে কিন্তু আপনি ইউজারদেরকে দিয়ে আপনার অ্যাপ এ কাজ করাতে পারেন অর্থাৎ আর্নিং অ্যাপ তৈরি করতে পারেন যদি আপনার লক্ষ্য করেন তাহলে দেখতে পারবেন অনেক ধরনের আর্নিং অ্যাপ রয়েছে আমাদের বাংলাদেশের যেগুলোতে কাজ করলে কিন্তু তারা ইউজারদেরকে পেমেন্ট করে।

আপনি যে একজন অ্যাপ ডেভলপার হতে চান বা একজন অ্যাপ ডেভলপার হয়ে ইনকাম করার ইচ্ছে জাগে তাহলে কিন্তু আপনি এইভাবে ও ইনকাম করতে পারবেন যদিও অনেকেই কিন্তু এই ভাবে ইনকাম করেনা।

যারা প্রফেশনাল তারা কিন্তু সব সময় শুধু অ্যাপ তৈরি করে এবং অ্যাপ গুলো অন্য কারো কাছে বিক্রি করে দেয় বিভিন্ন ধরনের মার্কেটপ্লেসে রয়েছে মার্কেটপ্লেসগুলোতে আপনি খুব সুন্দর ভাবে আপনার তৈরীকৃত এক বিক্রি করতে পারবেন 200 থেকে 300 ডলারের মধ্যে যদি আপনি সুন্দর একটি এপ্লিকেশন তৈরি করে বড় কোন মার্কেটপ্লেসে বিক্রি করেন।

তাহলে কিন্তু আপনি সেখান থেকে 200 থেকে 300 ডলার পর্যন্ত একটি অ্যাপের মাধ্যমে ইনকাম করতে পারবেন এবং অবশ্যই আপনার অ্যাপ্লিকেশন কোয়ালিটি ভালো হতে হবে যদি বায়ারের কাছে আপনার অ্যাপ্লিকেশনটি পছন্দ হয়ে যায় তাহলে কিন্তু পরবর্তী সময়ে সে আপনাকে আরও বিভিন্ন ধরনের অ্যাপ তৈরি করার অফার করবে।

ইউজারদেরকে দিয়ে কিভাবে আপনি থেকে ইনকাম করবেন এই বিষয়ে আমি সংক্ষিপ্ত কিছু কথা বলতেছি আপনি চাইলে কিন্তু গুগল এডমোব অথবা আরও যে বিভিন্ন ধরনের অ্যাপ্লিকেশন এর অ্যাড্রেস অ্যাড গুলো ব্যবহার করতে পারেন।

আপনি কিন্তু শুধুমাত্র অ্যাপ্লিকেশন থেকে ইনকাম করতে পারবেন প্রথমত এড এর মাধ্যমে অর্থাৎ আপনার অ্যাপ্লিকেশনের যদি কোন প্রকার এড ব্যবহার করেন তাহলে কিন্তু আপনি সেখান থেকে ইনকাম করতে পারবেন এছাড়াও আরও বিভিন্ন ধরনের উপায় রয়েছে অ্যাপ্লিকেশন থেকে ইনকাম করা যেগুলো থাকে কিন্তু আপনি আরো দ্বিগুন ইনকাম করতে পারবেন।

টাকা আয় করার apps

প্লে স্টোরে কিন্তু অনেক ধরনের অ্যাপ রয়েছে যেগুলো থেকে আপনি খুব সহজে টাকা ইনকাম করতে পারবেন বাংলাদেশে অনেক ধরনের অ্যাপ রয়েছে যারা কিন্তু প্রতিনিয়ত পেমেন্ট করে যাচ্ছে।

আপনি চাইলে কিন্তু সেখানে কাজ করে ইনকাম করতে পারবেন সহজেই মূলত অ্যাপগুলোতে কি কি কাজ করা হয় সেই বিষয়ে আপনাদের সাথে এখন সংক্ষিপ্ত কিছু আলোচনা করব আশাকরি সংক্ষিপ্ত বিষয়গুলো দেখলে আপনি বুঝতে পারবেন একটি অ্যাপ থেকে কিভাবে ইনকাম করা যায়।

প্রথমত আপনি অ্যাপ থেকে ইনকাম করতে পারবেন বিভিন্ন ধরনের কাজ করা যেমন ধরুন কিছু কিছু অ্যাপ্লিকেশন রয়েছে আপনাকে স্পেনের মাধ্যমে কাজ করতে হবে অর্থাৎ একটি ফাঁকা বক্স থাকবে এবং তার মাঝখানে লেখা থাকবে ওকে আপনাকে সেটা।

ক্লিক করতে হবে এবং সাইটে কিন্তু পয়েন্ট থাকবে আপনার স্পিন বাটনটি যে ঘরে গিয়ে ঠেকবে এবং সেখানে যত পয়েন্ট লেখা থাকবে আপনি কিন্তু ততো পয়েন্ট আর্ন করতে পারবেন এবং প্রতিটি অ্যাপ কিন্তু পয়েন্ট সিস্টেম করা থাকবে হয়তোবা প্রতি 1000 পয়েন্ট এর মূল্য 100 টাকা বা এর কম বেশি হতে পারে।

এবং আপনি কিন্তু প্রতি 30 মিনিটে 10 বা 15 বার কাজ করতে পারবেন যদিও এটা আমি আইডিয়া করে বললাম প্রতিটি এত কিন্তু এখন আর প্রতিটি অ্যাপের কাজ ভিন্নতা রয়েছে তবে আমি সাধারণ উদাহরণ দিলাম আপনাদের সামনে।

এরপর হচ্ছে আপনাকে ম্যাথ ক্যুইজ অর্থাৎ আপনাকে যোগ-বিয়োগ বা গুণ করতে হবে কিছু সংখ্যা দিবে তারা সেইগুলো কে গুন করে নিচে একটা ফাঁকা বক্স দেখতে পারবেন সেখানে সাবমিট করতে হবে যদি আপনার উত্তরটি সঠিক হয় তাহলে কিন্তু আপনি সাথে সাথে পয়েন্ট পেয়ে যাবেন।

এরপর হচ্ছে ভিডিওটা আপনি বিভিন্ন ধরনের এড দেখে কিন্তু পয়েন্ট আর্নিং করতে পারবেন তারা হয়তো এরকম সিস্টেম রাখতে পারে বেশিরভাগেরই কিন্তু এরকম সিস্টেম থাকে যে এড দেখে পয়েন্ট আর্নিং করা যায়।

যদি আপনি বিভিন্ন ধরনের ফেসবুক গ্রুপ গুলোতে জয়েন করেন তাহলে দেখতে পারবেন নতুন নতুন অ্যাপ পাবলিসিটি করা এবং সেগুলো কিন্তু পেমেন্ট করে কিনা সেটি আপনি সেই গ্রুপগুলোতে দেখতে পারেন। আশাকরি বুঝতে পেরেছেন কিভাবে অ্যাপ এ কাজ করতে হয়।

শেষ কথা

আশা করি সকলের কাছে আমাদের আজকের পোস্টটি ভাল লেগেছে কেননা আজকে আমরা জেনেছি কিভাবে সাধারণ কাজ করে অনলাইন থেকে ইনকাম করা যায় এবং আপনিও কিন্তু পারবেন এই কাজগুলো করে ইনকাম করতে যদি কোন কিছু বুঝতে সমস্যা হয় তাহলে অবশ্যই আমাদেরকে কমেন্ট করে জানাবেন চেষ্টা করব সেই কমেন্টের যথাযথ উত্তর দেওয়ার জন্য।

সবাই ভাল থাকবেন এবং সুস্থ থাকবেন নতুন কিছু শিখার জন্য নতুন কিছু জানার জন্য আমাদের ওয়েবসাইটের সাথে থাকবেন ধন্যবাদ সবাইকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.